শনিবার, ২৭ মে ২০২৩, ০১:৪১ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
অফিস অটোমেশন সিষ্টেমের উদ্বোধন, কাগজবিহীন অফিস হতে চলেছে পাবিপ্রবি বঙ্গবন্ধুর ‘জুলিও কুরি’ শান্তি পদক প্রাপ্তির সুবর্ণজয়ন্তী উপলক্ষ্যে পাবিপ্রবিতে আলোচনা সভা পাবিপ্রবিতে প্রথমবর্ষের গুচ্ছ পদ্ধতির ভর্তি পরীক্ষার সকল আয়োজন সম্পন্ন আন-নাসর রমাদান কুইজ ও কর্জে হাসানা কার্যক্রম শুরু পাবনায় বর্ণাঢ্য আয়োজনে বাংলা নতুন বর্ষবরণ রূপপুর প্রকল্পের গাড়ি চালক সম্রাট হত্যা মামলার মূলহোতা মমিন গ্রেফতার নিখোঁজের দুইদিন পর রূপপুর প্রকল্পের গাড়িচালকের মরদেহ উদ্ধার বাউয়েট এ, “সরকারী খরচে আইনগত সহায়তা প্রদান কার্যক্রম” শীর্ষক সেমিনার অনুষ্ঠিত নিখোঁজের দুইদিন পর যমুনা নদী থেকে কিশোরের বস্তাবন্দী মরদেহ উদ্ধার চরতারাপুরে বালু মহলে পুলিশের ওপর চেয়ারম্যানের লোকজনের হামলা, সরঞ্জাম জব্দ

সাঁথিয়ায় করোনার টিকার এসএমএসের ফাঁদে হাতিয়ে নিচ্ছে টাকা

নিজস্ব প্রতিনিধি, পাবনামেইল টোয়েন্টিফোর ডটকম
  • প্রকাশিত বুধবার, ১৭ আগস্ট, ২০২২
Pabnamail24

পাবনার সাঁথিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের জুনিয়র মেকানিক মোঃ ইদ্রিস আলী’র বিরুদ্ধে করোনাভাইরাসের টিকার এসএমএসের ফাঁদে ফেলে বিদেশগামী ও সাধারণ মানুষের কাছ থেকে অর্থ হাতিয়ে নেয়ার অভিযোগ উঠেছে।

টিকা পেতে অনলাইনে নিবন্ধন শেষে এসএমএস পাওয়ার বাধ্যবাধকতা রয়েছে। এক্ষেত্রে ইদ্রিসের প্রবাসীদের টার্গেট। এসএমএস আটকে রেখে দ্রুত এসএমএস প্রাপ্তির প্রলোভন দেখিয়ে বেশ কিছুদিন ধরে দুইশত থেকে এক হাজার টাকা পর্যন্ত টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে বিদেশগামীদের কাছে থেকে।

জানা যায়, সাধারণত বিদেশগামীদের টিকা গ্রহণে বাধ্যবাধকতা ও তাড়া থাকে। তাদের অনেকের ভিসার মেয়াদ শেষ হয়ে আসে, কারো কারো বিমানের টিকিট কাটা থাকে। বিদেশগামীদের টিকা গ্রহণে এ তাড়ার সুযোগ নিয়ে ঘুষ নেওয়ার ফাঁদ পেতে বসে আছে সে। আর এভাবে বেশ কিছুদিন ধরে মানুষের কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে। ভুক্তভোগীদের হাত থেকে সরাসরি ঘুষ নেওয়ার ভিডিও এই প্রতিবেদকের কাছে আছে।

বিদেশগামী কয়েকজন ভুক্তভোগী জানান, ঘুষ না দিলে এসএমএস দিতে অনেক জটিলতা দেখান ইদ্রিস আলী, আর ঘুষ দিলে তাৎক্ষণিকভাবে এসএমএস দিয়ে দেন। এই জন্য বাধ্য হয়েই আমরা টাকা দিয়ে এসএমএস কিনে করোনার বুষ্টার ডোজ টিকা নিচ্ছি।

জুনিয়র মেকানিক ইদ্রিস আলী বলেন, আমি যে এরকমভাবে টাকা নিছি তা আমার বিশ্বাস হচ্ছেনা। যদিও নিয়ে থাকি তাহলে এমন আর হবেনা।

এ বিষয়ে সাঁথিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডাক্তার জান্নাতুল ফেরদৌস বৈশাখী বলেন, এ বিষয়ে আমার কিছু জানা নাই। করোনার এসএমএস দেওয়া নিয়ে আমার কাছে কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

শেয়ার করুন

বিভাগের আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published.

error: Content is protected !!