শুক্রবার, ২১ জানুয়ারী ২০২২, ০১:৩৯ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
অধ্যক্ষ ছাড়া চলছে ঈশ্বরদী সরকারী কলেজ, প্রসাশনিক কাজ বিঘ্নিত শহরের দিলালপুরে নির্মাণ শ্রমিককে কুপিয়ে হত্যা বাংলার আর্থসামাজিক উন্নয়নে আ.লীগ সরকারের বিকল্প নেই-এসএম কামাল এমপির ছেলেকে সাধারণ সম্পাদক করতে নিষেধাজ্ঞা ভেঙে আ.লীগের সম্মেলন! ঢালারচর উচ্চ বিদ্যালয়ের এসি কিনতে করোনা টিকা ফি আদায়, ক্ষুব্ধ অভিভাবকরা ঈশ্বরদীতে ফুড ওয়েভ রেস্টুরেন্ট উদ্বোধন চাঁন্দাই মানব কল্যাণ সংস্থার উদ্যোগে পাবলিক লাইব্রেরীর উদ্বোধন বিশ্ব ভালোবাসা দিবসে মুক্তি পেতে যাচ্ছে স্বল্পদৈর্ঘ চলচিত্র ‘ফ্লাস ব্যাক’ ঈশ্বরদীতে যুবদল নেতার উপর হামলা: পাল্টাপাল্টি সংবাদ সম্মেলন সাঁথিয়ায় গৃহবধু ধর্ষণের ৫ দিনেও আটক হয়নি ধর্ষক

পাবনায় আবু বকর সিদ্দিক হত্যা মামলায়, দুই আসামীর মৃত্যুদন্ড

নিজস্ব প্রতিনিধি, পাবনামেইল টোয়েন্টিফোর ডটকম
  • প্রকাশিত বুধবার, ১ সেপ্টেম্বর, ২০২১
Pabnamail24

পাবনার ঈশ^রদীর শ্যালো ইঞ্জিন চালিত ভ্যান (করিমন) চালক আবু বকর সিদ্দিক হত্যা মামলায় ২ আসামীর মৃত্যুদন্ড এবং অপর ২ আসামীকে ৩ বছর করে সশ্রম কারাদন্ডে দন্ডিত করেছেন আদালত। এছাড়া মামলায় এজাহারভুক্ত আরেক আসামীকে খালাস দেয়া হয়েছে। বুধবার পাবনা জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিজ্ঞ বিচারক মোহাম্মদ আসাদুজ্জামান খান এ রায় ঘোষণা করেন। পাবনার সরকারী কৌশুলী আব্দুস সামাদ খান রতন বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন। মৃত্যুদন্ডাদেশ প্রাপ্ত আসামীরা হল, রব্বেল (৪০), রুবেল (৩০)। কারাদন্ডাদেশ প্রাপ্তরা হলেন, রফিকুল (৪৫) ও শিপন ( ৩৮)।

তিনি জানান, ২০১৫ সালের ৮ এপ্রিল বিকেলে পাবনা ঈশ^রদীতে ভ্যান ভাড়া নেবার কথা বলে আবু বকরকে ফোনে ডেকে নেয় আসামীরা। এ সময় তাকে শ^াসরোধে হত্যা করা হয়। পরদিন ঈশ^রদী আঞ্চলিক কৃষি গবেষণা ইনস্টিটিউটের প্রাচীর সংলগ্ন ঝোপ থেকে তার হাত পা বাঁধা মরদেহ উদ্ধার হয়। এ ঘটনায় অজ্ঞাতনামাদের আসামী করে ঈশ^রদী থানায় মামলা দায়ের করে আবু বকরের পরিবার।

পুলিশ মামলার তদন্তে সন্দেহভাজন হিসেবে ঈশ^রদী থেকে রব্বেল, রুবেল, শিপন, রফিকুল শিপন। পুলিশের জেরার একপর্যায়ে রব্বেল ও রুবেল আবু বকরকে শ^াসরোধে হত্যার কথা স্বীকার করে। রফিকুল ও শিপনের নিকট থেকে ছিনতাই হওয়া করিমন উদ্ধার করা হয়।

পরে, আসামীরা আদালতে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দী প্রদান করে। দীর্ঘ সাক্ষ্য প্রমাণ উপস্থাপন শেষে বুধবার মামলার রায় ঘোষণা করা হয়। মামলার অপর আসামী রাব্বির হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত থাকার প্রমাণ না পাওয়ায় বেকসুর খালাস দিয়েছেন আদালত।

মামলাটির রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ছিলেন আব্দুস সামাদ খান রতন ও আসামী পক্ষে ছিলেন আবুল কালাম আজাদ রেন্টু।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

শেয়ার করুন

বিভাগের আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!