শনিবার, ৩১ অক্টোবর ২০২০, ০১:৪৩ অপরাহ্ন

শহীদ মিনারে জুতা পড়ে গ্রাম্য শালিস

নিজস্ব প্রতিনিধি, পাবনামেইল টোয়েন্টিফোর ডটকম
  • প্রকাশিত বুধবার, ৩০ সেপ্টেম্বর, ২০২০
Pabnamail24
পাবনায় শহীদ মিনার এর উপর জুতা পড়ে গ্রাম্য শালিস পরিচালনার অভিযোগ উঠেছে। ঘটনাটি ঘটে পাবনা সদর উপজেলার অর্ন্তগত দক্ষিণ কোমরপুর’র পদ্মা কলেজে।
গত (২৬-০৯-২০) তারিখে দক্ষিন কোমরপুর এলাকার বাসিন্দা জাসদ কর্মি আবু বকর সিদ্দিক ও একই এলাকার রনি হোসেন’র ব্যাক্তিগত আক্রোশ সম্পর্কিত সমস্যার সমাধানে গ্রাম্য শালিস বসে পদ্মা কলেজ’র শহীদ মিনারের উপর এবং তারা সকলে শহীদ মিনারের উপর জুতা পড়ে দাড়িয়ে ও বসে এই কার্যক্রম পরিচালনা করে।
এক পর্যায়ে সেখানকার সচেতন ছাত্রসমাজের প্রতিনিধিরা তাতে বাধা প্রদান করলে তাদের অকথ্য ভাষায় গালামন্দ করে কুষ্টিয়া জেলার কুমারখালি উপজেলার সাদিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন মানিক, বীরমুক্তিযোদ্ধা কোবাদ আলী বিশ্বাস, আওয়ামীলীগ নেতা মান্নান মেম্বার সহ শালিস পরিচালনা কমিটির সদস্যবৃন্দ।
এ সম্পর্কে ছাত্রসমাজের একজন প্রতিনিধি এই প্রতিবেদককে জানান  “আমরাই একমাত্র জাতি যে জাতি নিজের ভাষার জন্য ১৯৫২ সালের ২১শে ফেব্রুয়ারি রাজপথে প্রাণ দিয়েছে। আজ পুরো বিশ্ব জানে আমাদের সেই অনন্য সাহসীকতার গল্প জানে । ২১শে ফেব্রুয়ারি বিশ্বব্যাপী আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসের স্বীকৃতিও পেয়েছে।
সেই ভাষা সৈনিকদের ত্যাগের প্রতি শ্রদ্ধা জানিয়ে তাদের স্মরণে নির্মিত শহীদ মিনার ।
আর সেই শহীদ মিনারের জুতা পায়ে দাঁড়িয়ে সালিশি বিচার করছে আমাদের সমাজের মান্যগণ্য ব্যাক্তিগণ । আর হ্যাঁ, সবচেয়ে খারাপ লাগার কথা সেই বিচারকার্য উপস্থিত ছিলেন জাতির শ্রেষ্ঠ সন্তান মুক্তিযোদ্ধারা।
সেই বিচারকার্যে সভাপতিত্ব করেন, কুষ্টিয়া জেলার, কুমারখালি উপজেলার সাদিপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান তোফাজ্জল হোসেন মানিক ।
আমরা ভাষা শহীদদের অবমাননা’র দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি করছি এবং তাদের বিরুদ্ধে যদি প্রশাসন কোন পদক্ষেপ না নেয় আগামীতে আমরা রাজপথে এই ভাষা শহীদদের অবমাননা করার জন্য আন্দোলনে নাববো।

শেয়ার করুন

এ জাতীয় আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!