বৃহস্পতিবার, ২৭ জানুয়ারী ২০২২, ১২:১৫ অপরাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
আব্দুল্লাহ-গালিব সৃতি ক্রিকেট টুর্নামেন্টের খেলায় পাবনা ইগলস জয়ী পাবনায় আদালত চত্বর থেকে সাক্ষী অপহরণ, বাধা দেয়ায় লাঞ্ছিত ৩ আইনজীবী চলনবিলে শীত উপেক্ষা করে কৃষকরা বোরো রোপণে ব্যস্ত ঈশ্বরদীতে শিশু হত্যা মামলায় এক আসামির যাবজ্জীবন চলনবিলাঞ্চলে শীতে ছিন্নমূল মানুষের দুর্ভোগ চাটমোহরে ছিনতাইকারীর কবলে পড়ে দুধ ব্যবসায়ীর মৃত্যু জীবনের নিরাপত্তা চেয়ে নির্বাচনী সংঘাতে এলাকাছাড়া পরিবারের সংবাদ সম্মেলন স্বাস্থ্যবিধি মেনে পরীক্ষা গ্রহণের দাবিতে পাবনায় শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন পাবনায় পদ্মা নদীর বুকে সেই রাস্তা অপসারণ করলো প্রশাসন রূপপুর প্রকল্পে থামছে না চুরি, এবার ক্যাবল চুরি

গুনাইগাছা ইউনিয়ন পরিষদ দুধ ও গোলাপজলে ধুয়ে দায়িত্ব নিলেন চেয়ারম্যান

নিজস্ব প্রতিবেদক, পাবনামেইল টোয়েন্টিফোর ডটকম
  • প্রকাশিত বুধবার, ১২ জানুয়ারী, ২০২২
Pabnamail24

দ্বায়িত্ব গ্রহনের আগে দুধ ও গোলাপ জল দিয়ে ইউনিয়ন পরিষদকে পরিষ্কার করে নিলেন গুনাইগাছা ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান রজব আলী বাবলু। মঙ্গলবার (১১ জানুয়ারি) বিকেলে চাটমোহর উপজেলার গুনাইগাছা ইউনিয়ন পরিষদে এ ঘটনা ঘটে।

এ সংবাদ এলাকায় ছড়িয়ে পড়লে কৌতুহলী মানুষের ভীড় জমে ইউনিয়ন পরিষদে। কেউ ছবি তুলে কেউবা ভিডিও করে সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ছড়িয়ে দেন। আর এতেই ব্যাপক আলোড়ন সৃষ্টি হয়েছে।

এর আগে গত রোববার (৯ জানুয়ারি) জেলা প্রশাসকের কার্যালয়ে চাটমোহরের ১১টি ইউনিয়নের নবনির্বাচিত চেয়ারম্যানদের সাথে শপথ গ্রহণ করেন রজব আলী বাবলু। বুধবার (১২ জানুয়ারি) তিনি মিলাদ পড়িয়ে, ফিতা কেটে পরিষদের দায়িত্ব গ্রহণ করেন। এ সময় সাবেক চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম সেখানে উপস্থিত ছিলেন না। পরিষদ সচিবের কাছ থেকে দায়িত্ব বুঝিয়ে নেন।

ঘটনার বিষয়ে জানতে চাইলে নবনির্বাচিত চেয়ারম্যান রজব আলী বাবলু বলেন, এই পরিষদে আগে অনেক অসামাজিক কার্যক্রম পরিচালিত হতো। তাই পরিষদকে পবিত্র করতে আমার কর্মী-সমর্থকদের পানি দিয়ে ধুয়ে দিতে বলেছিলাম। তারা উৎসাহি হয়ে আনন্দ করে দুধ ও গোলাপ জল দিয়ে ধুয়ে দিয়েছে।

তিনি আরো বলেন, বুধবার সকালে প্রথম পরিষদে যাওয়ার আগে আমি সেখানে ক্বারী, মুসুল্লী দিয়ে মিলাদ পরিয়ে আল্লাহর নাম নিয়ে পরিষদের প্রথম কর্মদিবস শুরু করেছি। যেহেতু আমি মুসলমান, পাঁচ ওয়াক্ত নামাজ পড়ি। তাই পরিষদকে পবিত্র করে নতুনভাবে শুরু করেছি। আশা করছি, এখন থেকে এই ইউনিয়ন পরিষদ কার্যালয়ে কোনো অনৈতিক বা খারাপ কাজ হবে না।

এ বিষয়ে দৃষ্টি আকর্ষণ করা হলে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান নুরুল ইসলাম বলেন, দায়িত্ব গ্রহণ করা অনুষ্ঠানে তিনি আমাকে ডাকেননি। সচিব এসে স্বাক্ষর করে নিয়ে গেছে। শুনলাম, আমি নাকি খারাপ মানুষ ছিলাম, পরিষদে খারাপ কাজ হতো, তাই দুধ আর গোলাপ জল দিয়ে ধুয়ে দায়িত্ব নিয়েছেন তিনি। দুইবার হেরে এবার জিতেছেন।তাই আনন্দে গদগদ হয়ে এটা করেছেন তিনি। এটা নিচু মানসিকতার পরিচয়।

নুরুল ইসলাম বলেন, আমিও দুইবার নির্বাচিত চেয়ারম্যান ছিলাম। আমি কখনও অতীত চেয়ারম্যানদের অসম্মান করিনি। ওই পরিষদের জমি আমার আর সাবেক চেয়ারম্যান আফজাল হোসেনের দেয়া। নতুন ভবন নির্মাণ, রঙ করা ও ফার্নিচার সব আমার হাতে করা। সেখানে আমি খারাপ কাজ করবো এমন প্রশ্নই ওঠে না। বর্তমান চেয়ারম্যানও সারাজীবন থাকবেন না। একদিন যেতে হবে।

উল্লেখ্য, গত ২৮ নভেম্বর অনুষ্ঠিত দ্বিতীয় ধাপের ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে রজব আলী বাবলু তার আপন ভায়রা দুইবারের সাবেক চেয়ারম্যান নুরুল ইসলামকে বিপুল ভোটে পরাজিত করে চেয়ারম্যান নির্বাচিত হন।

 

 

 

 

 

 

 

 

 

শেয়ার করুন

বিভাগের আরো খবর

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

error: Content is protected !!